ব্রেকিং

x

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় করোনা রোগী সেরে উঠছে দ্রুত, সুস্থতার পরিমান হাজার ছাড়িয়েছে

রবিবার, ২৬ জুলাই ২০২০ | ৮:৪১ পূর্বাহ্ণ | 366 বার

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় করোনা রোগী সেরে উঠছে দ্রুত, সুস্থতার পরিমান হাজার ছাড়িয়েছে
ayesha_furniture

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় করোনা আক্রান্তদের মধ্যে সুস্থতার হার বাড়ছে। জেলায় করোনা আক্রান্তের পরিমান বাড়লেও ইতিমধ্যে সুস্থতার পরিমান হাজার ছাড়িয়েছে। আজ রোববার পর্যন্ত ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ১৮৫৯ জন করোনা রোগীর মধ্যে ১০২৬ জন সুস্থ হয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরেছেন।


ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় সিভিল সার্জন কার্যালয় সূত্রে জানাগেছে, গতকাল শনিবার পর্যন্ত ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলায় ১৩ হাজার ৬৭১ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। এর মধ্যে ১৩ হাজার ৪৯ জনের নমুনায় প্রাপ্ত ফলাফলে ১৮৫৯ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়। ৩১ জন মৃত্যুবরণ করেছে এবং সুস্থ্য হয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরেছে ১০২৬ জন। বর্তমানে আইসোলেশনে রোগীর সংখ্যা ৮০২ জন। ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ৭৮৫ জন ও অন্যান্য জেলায় রয়েছে ১৭ জন।


আক্রান্ত ও মৃতের তালিকায় শীর্ষে রয়েছে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলা। এখানে সুস্থ হয়ে উঠা মানুষের সংখ্যাও বেশি। এই উপজেলায় করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ১১  মানুষ আর করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৬২২ জন আর সুস্থ হয়েছেন ৩৬৪ জন।
এছাড়া আখাউড়া উপজেলায় আক্রান্ত ১৬৬ জন, মারা গেছেন ৬ জন এবং সুস্থ হয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরেছেন ৪৩ জন, বিজয়নগর উপজেলায় আক্রান্ত ৫৯ জন, মারা গেছেন ১ জন এবং সুস্থ হয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরেছেন ৪৮ জন, নাসিরনগর উপজেলায় আক্রান্ত ৮১ জন, মারা গেছেন ১ জন এবং সুস্থ হয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরেছেন ৫০ জন, বাঞ্চারামপুর উপজেলায় আক্রান্ত ১৪৩ জন, মারা গেছেন ৩ জন এবং সুস্থ হয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরেছেন ৫৯ জন, নবীনগর উপজেলায় আক্রান্ত ৩১১ জন, মারা গেছেন ৭ জন এবং সুস্থ হয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরেছেন ১৯২ জন, সরাইল উপজেলায় আক্রান্ত ১০৭ জন, মারা গেছেন ১ জন এবং সুস্থ হয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরেছেন ৬৩ জন, আশুগঞ্জ উপজেলায় আক্রান্ত ১৪৮ জন, এখানে কেউ মারা যায়নি তবে সুস্থ হয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরেছেন ৫০ জন, কসবা উপজেলায় আক্রান্ত ২২২ জন, মারা গেছেন ১ জন এবং সুস্থ হয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরেছেন ১৫৭ জন।

স্বাস্থ্য বিভাগের দিক থেকে রোগীদের সঠিক দিকনির্দেশনা দেওয়া, সার্বক্ষণিক ফলোআপ করা, আক্রান্তদের মধ্যে জটিল কোনো উপসর্গ না থাকায় করোনা আক্রান্তরা দ্রুত সেরে উঠছেন বলে স্বাস্থ্য বিভাগ জানিয়েছেন।

সুস্থ হয়ে উঠা বেশ কয়েকজন রোগী জানায়, করোনায় আক্রান্ত হলে কোনো ধরণের ভয় বা গুজবে কান না দিয়ে মনোবল শক্ত করতে হবে। জটিল কোনো উপসর্গ দেখা না দিলে চিকিৎসকের নির্দেশনা অনুস্বরণ করলে বাড়িতে থেকেই করোনা রোগ থেকে সেরে উঠা সম্ভব।

আখাউড়ানিউজ.কমে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিও চিত্র, কপিরাইট আইন অনুযায়ী পূর্বানুমতি ছাড়া কোথাও ব্যবহার করা যাবে না।

Development by: webnewsdesign.com

error: Content is protected !!