ব্রেকিং

x

নায়িকা পূর্ণিমাকে নিয়ে তোলপাড়

মঙ্গলবার, ০৩ এপ্রিল ২০১৮ | ২:৫২ অপরাহ্ণ | 845 বার

নায়িকা পূর্ণিমাকে নিয়ে তোলপাড়

চিত্রনায়িকা পূর্ণিমা নাটক ও চলচ্চিত্রের পাশাপাশি সাম্প্রতিক সময়ে জনপ্রিয়তা পেয়েছেন তার সাবলীল উপস্থাপনার মাধ্যমে। এরই পরিপ্রেক্ষিতে গত ২৪ মার্চ প্রচারিত বেসরকারি টেলিভিশন আরটিভিতে ‘এবং পূর্ণিমা’ অনুষ্ঠানের একটি পর্বে অতিথি হয়ে আসেন খলনায়ক মিশা সওদাগর। এই পর্বে পূর্ণিমা চলচ্চিত্র বিষয়ে অনেক প্রশ্নের পাশাপাশি ‘পর্দায় ধর্ষণ সিন’ নিয়ে প্রশ্ন করেন অতিথি মিশার সঙ্গে। তার এই প্রশ্ন করা নিয়ে সমালোচনার ঝড় উঠেছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমসহ বিভিন্ন মাধ্যমে। ‘আপনি সিনেমাতে কতবার ধর্ষণ করেছেন? কার সঙ্গে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করতেন ধর্ষণের সিন করতে?’-অনুষ্ঠানে মিশা সওদাগরকে এমন প্রশ্ন করেছিলেন পূর্ণিমা, যা নিয়ে তৈরি হয়েছে বিতর্ক।

index


গত কয়েক দিন ধরে এ বিষয়ে তার কোনো বক্তব্য পাওয়া যাচ্ছিল না। তবে সম্প্রতি এই বিষয় নিয়ে তিনি দুঃখ প্রকাশ করেছেন। অনুষ্ঠানটি দেখে যারা তার ওপর ক্ষুব্ধ হয়েছেন কিংবা কষ্ট পেয়েছেন তাদের প্রতি তিনি দুঃখ প্রকাশ করেন। তিনি বলেন, ‘সত্যি কথাটা হলো আমরা আসলে অনেক কিছুই সহজভাবে নিতে পারি না। বোঝার চেষ্টা করি না, এটা একটা ফান শো বা আড্ডা। এই অনুষ্ঠান দেখে আমার কথায় যদি কেউ কষ্ট পেয়ে থাকেন, সেটার জন্য সত্যিই আমি আন্তরিকভাবে দুঃখিত। আপনাদের দুঃখ দেওয়ার জন্য এই অনুষ্ঠানগুলো বা সিনেমা করি না। আপনাদের আনন্দ দেওয়াই আমাদের উদ্দেশ্য।’ কিন্তু পূর্ণিমা এই দুঃখ প্রকাশের সঙ্গে সঙ্গে ক্ষোভ প্রকাশও করেন। ক্ষোভ প্রকাশের সুরে পূর্ণিমা বলেন, ‘আসলে ব্যক্তিগত রেষারেষি থেকে পুরো অনুষ্ঠানের ওই অংশটি কেটে ভিডিওটা ছড়ানো হয়েছে। তবে কারা এবং কেন করেছে তা এখন বলতে চাচ্ছি না। পরে সময় হলে সব জানিয়ে দেব সবাইকে। পূর্ণিমা এই ধরনের প্রশ্ন করার নেপথ্যের কারণ হিসেবে বলেন, ‘মিশা ভাইয়ের সঙ্গে করা প্রথম ছবিটিতে ধর্ষণের দৃশ্য ছিল আমার সঙ্গে। তিনি তো পুরো ক্যারিয়ারে হাজারটা এমন দৃশ্য করেছেন। আর আমিও  কমপক্ষে ৫০-৬০টি ছবিতে এই দৃশ্য করেছি। সবই কিন্তু চিত্রনাট্যের দাবিতে করা দৃশ্য মাত্র। সিনেমায় তো খুনোখুনিও হয়, ভালোবাসাও। আমরা তো সেই সিনেমারই মানুষ। অথচ মজার ছলে এই বিষয়ে কথা বলতে গেলে সেটা অন্যভাবে কেন নেওয়া? অনুষ্ঠানে আমাদের অনেক বিষয় নিয়ে আলাপ হয়েছে। কথা প্রসঙ্গে ধর্ষণ সিন বিষয়টাও এসেছে। কারণ, এটি যেকোনো শিল্পীর জন্য একটু কঠিন বিষয়। যেমন মিশা ভাই এই অনুষ্ঠানেই বলেছেন, মৌসুমী আপুর সঙ্গে তার যে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক সেটার কারণে তার সঙ্গে এই ধরনের বিশেষ সিন করতে তিনি স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করেন। কারণ, সহশিল্পীর সাপোর্ট ছাড়া আপনি কোনো দিনই ভালো অভিনয় করতে পারবেন না। অথচ এই জানতে চাওয়াটাই এখন জীবনের বড় ভুল হয়ে ধরা দিল। মিশা ভাই তো আমার সামনে বসে আমার কথাও বললেন। কারণ, আমরা বিষয়টাকে একটি দৃশ্য হিসেবেই ট্রিট করেছি। আমাদের মনে কোনো খারাপ উদ্দেশ্য ছিল না। অথচ সেটা নিয়ে এত বড় নোংরামি কেন? তবে এটা ঠিক, গেল এক সপ্তাহে দেশে কিছু অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ঘটেছে। কাছাকাছি সময়ে এই অনুষ্ঠানটা অনএয়ার যাওয়ার পর স্বাভাবিক বিষয়টাকে অস্বাভাবিক খাতে প্রবাহিত করা হয়েছে। ভিডিও ক্লিপ বানিয়ে ফেসবুক স্ট্যাটাস দিয়ে মানুষকে বিভ্রান্ত করেছে কিছু মানুষ।’ উল্লেখ্য, সৈয়দ আশিক রহমানের মূল ভাবনায় আরটিভিতে প্রচারিত সেলিব্রেটি টক-শো ‘এবং পূর্ণিমা’। অনুষ্ঠানটি প্রযোজনা করছেন সোহেল রানা বিদ্যুৎ এবং গ্রন্থনা করছেন অনিন্দ্য মামুন।

বিডিপ্রতিদিন

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

আখাউড়ানিউজ.কমে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিও চিত্র, কপিরাইট আইন অনুযায়ী পূর্বানুমতি ছাড়া কোথাও ব্যবহার করা যাবে না।

Development by: webnewsdesign.com

error: Content is protected !!