ব্রেকিং

x

করোনার মধ্যেও কর্মশালার ভাতা আটকে রেখেছেন আখাউড়ার স্বাস্থ্য কর্মকর্তা

শনিবার, ০৯ মে ২০২০ | ৮:২১ অপরাহ্ণ | 552 বার

করোনার মধ্যেও কর্মশালার ভাতা আটকে রেখেছেন আখাউড়ার স্বাস্থ্য কর্মকর্তা

করোনার মধ্যেও প্রায় দুই মাস আগে হওয়া হাম-রুবেলার কর্মশালায় অংশগ্রহনের সম্মানির ভাতা আটকে রেখেছেন ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা (ইউএইচএফপিও)। অংশগ্রহনকারিরা এ নিয়ে বারবার তাগাদা দিলেও কোনো ধরণের সাড়া পাচ্ছেন না। এ নিয়ে সংশ্লিষ্টদের মাঝে ক্ষোভ বিরাজ করছে।


খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, হাম-রুবেলা ক্যাম্পেইন সফলে মার্চ মাসে স্বাস্থ্য বিভাগ সংশ্লিষ্ট ৬৭ জনকে নিয়ে কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়। ওই কর্মশালায় অংশগ্রহন ও যাতায়ত হিসেবে সরকার নির্ধারিত ভাতা ইতিমধ্যেই আখাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এসেছে। তবে ওই ভাতা এখনো দেয়া হচ্ছে না।


নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক অংশগ্রহনকারি অভিযোগ করেন, অংশগ্রহনকারি সকলের ভাতার পুরো টাকা আসার খবরে তারা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে যোগাযোগ করেন। কিছুদিন পর ডেকে তাদেরকে ভাতা দেয়া হবে বলে জানানো হয়। কিছুদিন পর গেলে জানানো হয় ইউএইচএফপিও এখনই ওই ভাতা দিতে চাচ্ছেন না। ওনি সিদ্ধান্ত দিলে দেয়া হবে। করোনা পরিস্থিতিতে এ ভাতা পেলে যেখানে স্বাস্থ্য কর্মীরা উৎসাহ পাবেন সেখানে এটা আটকে রেখে তাঁদেরকে নিরুৎসাহ করা হচ্ছে। এর পিছনে অন্য কোনো উদ্দ্যেশ্যও থাকতে পারে।

যোগাযোগ করা হলে হাসপাতালের সংশ্লিষ্ট কর্মচারি অরুণ সাহা বলেন, ভাতার বিল এসেছে জানি। তবে এ বিষয়টি অফিস সহকারি অলক সাহা দেখভাল করছেন। ওনি বিষয়টি ভালো বলতে পারবেন।

অফিস সহকারি অলক সাহা বলেন, ‘ভাতার চেক এসেছে। স্যার (ইউএইচএফপিও) বলেছেন করোনা পরিস্থিতির পর এটা দিয়ে দিবেন।’ এখন দিতে সমস্যা কি এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘বিষয়টি নিয়ে স্যারের সঙ্গে কথা বলবো।

আখাউড়ানিউজ.কমে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিও চিত্র, কপিরাইট আইন অনুযায়ী পূর্বানুমতি ছাড়া কোথাও ব্যবহার করা যাবে না।

Development by: webnewsdesign.com

error: Content is protected !!