ব্রেকিং

x

আখাউড়ায় ৭দিনেও মিলছে না রিপোর্ট, করোনা বিস্তারের শঙ্কায় সাধারন মানুষ উদ্বিগ্ন

শনিবার, ১৩ জুন ২০২০ | ৬:৫৩ অপরাহ্ণ | 416 বার

আখাউড়ায় ৭দিনেও মিলছে না রিপোর্ট, করোনা বিস্তারের শঙ্কায় সাধারন মানুষ উদ্বিগ্ন
প্রতীকী ছবি

আখাউড়ায় এক সপ্তাহেও মিলছে না করোনার রিপোর্ট। পরিস্থিতি অনুযায়ী দ্রুত স্বাস্থ্য সেবা দিতে পারছে না স্বাস্থ্য বিভাগ। এতে করোনা ভাইরাস বিস্তারের শঙ্কা দেখা দিয়েছে। নমুনার ফলাফল দ্রুত না আসায় সাধারন মানুষও উদ্বিগ্ন।


উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে সূত্রে জানাগেছে, গতকাল শুক্রবার আখাউড়া উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা নুরজাহান বেগম ও মৎস্য অফিসের ক্ষেত্র সহকারী ঝুমন দাস নামে দুই সরকারী কর্মকর্তার শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। ১০দিন আগে (২রা জুন) তাদের নমুনা সংগ্রহ করা হয়। করোনা শনাক্তের আগ পর্যন্ত টানা ১০দিন অফিস করেছেন তারা। ক্ষেত্র সহকারী ঝুমন দাস মৎস্যচাষীদের টানা ৪দিন মাছ চাষের প্রশিক্ষণও দিয়েছেন। সহকর্মীসহ মাছ চাষীরা তাদের সংস্পর্শে ছিল।


গত বুধবার আখাউড়া আনোয়ারপুর গ্রামে মামুন নামে এক ব্যক্তির শরীরে করোনা শনাক্ত হয়। তারও নমুনা সংগ্রহ করা হয় ৮দিন আগে। আক্রান্ত মামুন ওয়াইফাই নেটওয়ার্কের ব্যবসায়িক হওয়ায় নমুনার সংগ্রহের পর টানা ৮দিন বিভিন্ন বাড়িতে যাতায়াত করেছে।

আরও পড়ুন: আখাউড়ায় সমাজসেবী শফিউদ্দিনের মৃত্যু, পৌরসভার মেয়রসহ বিভিন্ন মহলের শোক প্রকাশ

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একব্যক্তি আজকে জানায় গত ৭ তারিখ নমুনা দিয়েছে তার ভাই কিন্তু রিপোর্ট এখনো আসেনি। রিপোর্টের জন্য তার ভাই একটি সরকারী কাজে আটকা পড়েছে।

এভাবেই আসছে আখাউড়ায় করোনা শনাক্তের রিপোর্ট। নমুনা সংগ্রহের পর ৫দিন থেকে ১০দিন সময় লাগছে পরীক্ষার ফল জানতে। এতে করে অনেকেই উপসর্গ নিয়ে চলাফেরা করছেন। যাচ্ছেন অন্যদের সংস্পর্শে। এ পর্যন্ত আখাউড়ায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে দুইজনের মৃত্যু হয়েছে। আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাড়িয়েছে ২৭ জনে। বেশ কিছুদিন করোনা মুক্ত থাকার পর সম্প্রতি করোনা আক্রান্তের পরিমান বাড়ছে আখাউড়ায়। করোনা পরিস্থিতি অবনতির দিকে যাচ্ছে।

আরও পড়ুন: আখাউড়া দিয়ে ফিরলেন ভারতে আটকা পড়া ২৪ বাংলাদেশি

আখাউড়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আরএমও ডা: শ্যামল চন্দ্র ভৌমিক জানায়, আখাউড়ায় নমুনা সংগ্রহের পর ব্রাহ্মণবাড়িয়া সিভিল সার্জন কার্যালয়ে পাঠানো হয়। ব্রাহ্মণবাড়িয়া থেকে ঢাকা স্বাস্থ্য বিভাগের ল্যাবে পরীক্ষার পর রিপোর্ট আসতে ৫ থেকে ১০দিন সময় লাগছে। যে পরিমান পরীক্ষা করা সম্ভব তার চেয়ে অনেক বেশী নমুনা সংগ্রহ হওয়ায় রিপোর্ট আসতে সময় লাগছে  বলেও তিনি জানান। নমুনা দেয়ার পর সবাইকে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার পরামর্শ দিয়েছেন তিনি।

আখাউড়ানিউজ.কমে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিও চিত্র, কপিরাইট আইন অনুযায়ী পূর্বানুমতি ছাড়া কোথাও ব্যবহার করা যাবে না।

Development by: webnewsdesign.com

error: Content is protected !!