ব্রেকিং

x

আখাউড়ায় সংঘর্ষে আহত কামরুল মারাগেছে। বাড়িতে শোকের মাতম। গ্রেফতার ৩

বৃহস্পতিবার, ০৩ মে ২০১৮ | ২:৫৩ অপরাহ্ণ | 3311 বার

আখাউড়ায় সংঘর্ষে আহত কামরুল মারাগেছে। বাড়িতে শোকের মাতম। গ্রেফতার ৩
নিহত কামরুল, পাশে স্বজনদের বুক ফাটা আহাজারী

আখাউড়া নুরপুরে দুইপক্ষের সংঘর্ষের ঘটনায় গুরুত্বর আহত কামরুল মিয়া (১৮) আজ  বৃহস্প্রতিবার দুপুরে ঢাকায় মারাগেছে। নিহত কামরুলের বাড়িতে চলছে শোকের মাতম। গোটা গ্রাম জুড়ে নেমে এসেছে শোকের ছায়া।

এদিকে আজ দুপুরে এই হত্যাকান্ডের ঘটনায় পুলিশ ৩জনকে গ্রেফতার করেছে। অন্যরা বাড়িঘরে তালা দিয়ে গ্রাম ছেড়ে পালিয়েছে।


স্থানীয় দক্ষিন ইউনিয়ন চেয়ারম্যান মো: জালাল উদ্দিন জানায়, নিহত কামরুলকে গতকাল ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতাল থেকে আশংকাজনক অবস্থায় ঢাকা মেডিক্যালে পাঠানো হয়। আজ বৃহস্প্রতিবার দুপুর ১২টায় ঢাকায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় কামরুল মারাগেছেন। ময়নাতদন্তসহ প্রয়োজনীয় আনুষাঙ্গিক কাজ শেষে ঢাকা থেকে কামরুলের লাশ আসতে সন্ধ্যা হতে পারে বলেও তিনি জানান। নিহত কামরুল নুরপুর গ্রামের নসু মিয়ার ছেলে বলেও তিনি জানিয়েছেন।

পুলিশ জানিয়েছেন, কামরুল হত্যাকান্ডের ঘটনায় ইমান মিয়া (২৫), জজ মিয়া (৫৫) ও  শরীফ মিয়া (২৮)কে গ্রেফতার করা হয়েছে।

y7

নিহত কামরুলের ভাই মহসীন

এদিকে আজ দুপুরে সরেজমিন নুরপুর গ্রামে গিয়ে দেখাগেছে, কামরুলের বাড়িতে শোকের মাতম চলছে। কামরুলের ভাইবোনের ভাইহারানো আহাজারী আর কান্নায় ভারী হয়ে উঠেছে চারপাশ। ছোট ভাই মহসীন, বোন, চাচী ও চাচা শিশু মিয়াসহ স্বজনরা শোকে কান্নায় মাটিতে লুটিয়ে পড়ছেন। ঢাকায় লাশের সাথে কামরুল মা শোকে কান্নায় জ্ঞান হারিয়েছেন বলেও তাদের স্বজনরা জানায়।

y6

কামরুলের বোন

এদিকে খুনি জজ মিয়ার বাড়িতে গিয়ে দেখাগেছে, তাদের সব ঘর তালাবদ্ধ। টের পেয়ে রাতেই গ্রাম ছেড়ে তারা পালিয়েছে বলে এলাকার লোকজন জানিয়েছেন।

y2

খুনি জজ মিয়ার ঘরে তালা জুলছে

এ ব্যাপারে আখাউড়া থানার ওসি তদন্ত আরিফ আমিন জানান, কামরুল হত্যাকান্ডের ঘটনায় ইতিমধ্যে ৩ খুনিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অন্যদের গ্রেফতার করতে অভিযান চলছে।

y10

কামরুলের আরেক স্বজনের আহাজারী

উল্লেখ্য তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে গতকাল বুধবার সকালে আখাউড়া নুরপুর গ্রামের জজ মিয়া ও নসু মিয়ার লোকজনের মধ্যে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ হয়। এই সংঘর্ষে দুইপক্ষের ১০জন আহত হয়। আশংকাজনক অবস্থায় গুরুত্বর আহত কামরুল মিয়া (১৮) ও ইকবাল মিয়া (২৬)কে প্রথমে আখাউড়া হাসপাতাল থেকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতাল পরে ঢাকা মেডিক্যালে প্রেরণ করা হয়। অন্যদেরকে আখাউড়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। আজ দুপুর ১২টায় কামরুল মারা যায়। ইকবালের চিকিৎসা চলছে ঢাকায়।

y4

নুরপুর গ্রামের খুনি জজ মিয়ার বাড়ির সামনে এই ডোবার পাড়েই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

আখাউড়ানিউজ.কমে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিও চিত্র, কপিরাইট আইন অনুযায়ী পূর্বানুমতি ছাড়া কোথাও ব্যবহার করা যাবে না।

Development by: webnewsdesign.com

error: Content is protected !!