ব্রেকিং

x

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় নালার মুখে বাধ, হাজার একর জমির চাষ বন্ধ

বুধবার, ০৯ জানুয়ারি ২০১৯ | ৯:০৯ অপরাহ্ণ | 841 বার

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় নালার মুখে বাধ, হাজার একর জমির চাষ বন্ধ

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলার বাসুদেব ইউনিয়নের বরিশল গ্রামে নালার মুখে বাধ দিয়ে পানি চলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। যে কারণে নালার আশে পাশের প্রায় এক হাজার একর জমি চাষ করতে পারছেন না কৃষকরা। এ বিষয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) এর বরাবর লিখিত অভিযোগ দেয়া হয়েছে।
সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, আখাউড়া পৌর এলাকার বড় বাজার হয়ে বরিশল গ্রাম শুরু। সড়ক পথের একটি সেতু পার হয়েই বিশাল এলাকাজুড়ে কৃষি জমি। তবে সব কিছুই পড়ে আছে ফলনহীন। জমিগুলোর মাঝ দিয়ে বয়ে যাওয়া খালের মুখে বাধ দেয়ায় পানি জমে গেছে। নালাটি যেখানে গিয়ে তিতাস নদীতে মিশেছে সেখানেই বাধ দেয়া হয়েছে।
কথা হলে, বরিশল গ্রামীন বাংলা মৎস্য সমবায় সমিতি লিমিটেড এর সভাপতি হাজি মো. বিল্লাল হোসেন এ প্রতিবেদককে জানান, শ্যামনগর গ্রামের হুমায়ুন কবির নামে এক ব্যক্তি ওই এলাকার কিছু জমি লিজ নিয়েছেন। লিজ নেয়া জমি ভরাটের উদ্দেশ্যে তিনি নালার মুখ বন্ধ করে দিয়েছেন। যে কারণে ওই এলাকার জমি গুলোতে পানি জমে আছে। ফলে জমিতে চাষ করা যাচ্ছে না। বর্ষায় এসব জমিতে পানি উঠলে মাছ চাষ করা হতো। তিতাস নদী থেকে পানি আসবে বলে সেটাও তখন সম্ভব হবে না।
বাসুদেব ইউনিয়নের ৬ নং ওয়ার্ডের মেম্বার (সদস্য) মো. রমজান আলী গন্দু মিয়া বলেন, ‘ওই এলাকায় আমারও জমি আছে। আমরা এখানে চাষ করতে পারছি না। বিষয়টি দ্রুত সমাধান করার জন্য সংশ্লিষ্টদের প্রতি অনুরোধ জানাই’।
অভিযুক্ত হুমায়ুন কবির বলেন, ‘পাশের কিছু জমি বালু দিয়ে ভরাট করা হচ্ছে। বালুর সাথে মিশ্রিত পানি যেন অন্য জমিতে না যেতে পারে সে কারণে এখানে বাধ দেয়া হয়েছে।’ তবে জমি ভরাটের পর বাধ খুলে দেয়া হবে কি না এ বিষয়ে তিনি কোনো সদোত্তর দিতে পারেননি।’
মোবাইল ফোনে জানতে চাইলে সোমবার বিকেলে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) মো. ইসমাইল এ প্রতিবেদককে বলেন, ‘এই মুহুর্তে এ ধরণের অভিযোগের বিষয়টি মনে করতে পারছি না। খোঁজ নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।’ ভুক্তভোগীদের যোগাযোগ করার পরামর্শও দেন তিনি।

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

আখাউড়ানিউজ.কমে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিও চিত্র, কপিরাইট আইন অনুযায়ী পূর্বানুমতি ছাড়া কোথাও ব্যবহার করা যাবে না।

Development by: webnewsdesign.com

error: Content is protected !!